উৎসব ও আনন্দমূখর পরিবেশে রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ে পাঠদান শুরু

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

আনন্দঘন ও উৎসবমূখর পরিবেশে পাঠদানের মধ্যদিয়ে সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুরে অবস্থিত রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় বাংলাদেশ আনুষ্ঠানিকভাবে যাত্রা শুরু হয়েছে। গত ১৭ ই এপ্রিল মঙ্গলবার সকাল ১১টায় শাহজাদপুর মহিলা ডিগ্রি কলেজে স্থাপিত অস্থায়ী ক্যাম্পাসে ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষে চার বছর মেয়াদী স্নাতক (সম্মান) শ্রেণীতে তিনটি অনুষদের পাঠদান কার্যক্রম উদ্বোধন করেন রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় বাংলাদেশ উপাচার্য বিশ্বজিৎ ঘোষ। রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় বাংলাদেশে অনুষদগুলো হলো, রবীন্দ্র অধ্যয়ন বিভাগ, সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য ও বাংলাদেশ অধ্যয়ন বিভাগ এবং অর্থনীতি বিভাগ।

প্রতিটি বিষয়ে ৩৫ জন করে মোট ১০৫ জন শিক্ষার্থীকে নিয়ে শাহজাদপুর পৌর এলাকার ৩টি বেসরকারি কলেজের একাংশের অস্থায়ী ক্যাম্পাসে শিক্ষা কার্যক্রম শুরু হওয়ার মধ্যে দিয়ে রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের যাত্রা শুরু হচ্ছে। রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ড. বিশ্বজিৎ ঘোষ এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়, বাংলাদেশ’র ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার সোহরাব হোসেন জানান, গত ১৫ ফেব্রুয়ারি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রথম বর্ষের ৩টি বিষয়ে ভর্তি ইচ্ছুক শিক্ষার্থীদের লিখিত পরীক্ষা গ্রহন করা হয়। মোট ১০৫টি আসনের জন্য প্রায় সাড়ে ৩ হাজার পরীক্ষার্থী লিখিত পরীক্ষায় অংশ নেয়। গত ২৪ ও ২৫ মার্চ শাহজাদপুরে রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের অস্থায়ী ভবনে পরীক্ষার্থীদের মৌখিক পরীক্ষা সম্পন্ন হয়। তিনি জানান, মেধা তালিকা অনুযায়ী ৩টি বিষয়ে ইতোমধ্যেই ৯৬ জন শিক্ষার্থী ভর্তি হয়েছে। অপেক্ষমান তালিকা থেকে ৯ জন শিক্ষার্থীকে ভর্তি জন্য বাছাই করা হয়েছে। ক্লাস শুরুর আগেই তাদের ভর্তি প্রক্রিয়া সম্পন্ন হবে বলে তিনি জানান। সূত্রমতে, ইতোমধ্যেই সংশ্লিষ্ট বিষয়ের শিক্ষকসহ অন্যন্য কর্মচারীর নিয়োগ সম্পন্ন হয়েছে।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য নির্ধারিত স্থানে বিশ্ববিদ্যালয়ের অবকাঠামো নির্মাণ কাজ সম্পন্ন না হওয়া পর্যন্ত অস্থায়ীভাবে দাপ্তরিক কর্মকান্ড, প্রশাসনিক কার্যালয় ও ক্লাস পরিচালনার জন্য শাহজাদপুর পৌর এলাকার বঙ্গবন্ধু মহিলা কলেজ, শাহজাদপুর মহিলা ডিগ্রি কলেজ ও মওলানা ছাইফ উদ্দিন এহিয়া ডিগ্রি কলেজের একটি করে ভবন বিনা ভাড়ায় ব্যবহারের জন্য প্রাথমিক পর্যায়ে ৫ বছর মেয়াদী সংশ্লিষ্ট কলেজ কর্তৃপক্ষের সাথে রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের মধ্যে চুক্তিপত্র সম্পাদন করা হয়েছে।

সূত্রমতে, শাহজাদপুর মহিলা ডিগ্রি কলেজের নব-নির্মিত ৪তলা ভবনে প্রশাসনিক কার্যালয়, দাপ্তরিক কর্মকান্ড সহ রবীন্দ্র অধ্যায়ন বিভাগ এবং ইতিহাস ঐতিহ্য ও বাংলাদেশ অধ্যায়ন বিভাগের শিক্ষার্থীদের এবং মওলানা ছাইফ উদ্দিন এহিয়া ডিগ্রি কলেজের একটি ভবনে অর্থনীতি বিভাগের শিক্ষার্থীদের ক্লাস নেয়া হবে। অন্যদিকে, বঙ্গবন্ধু মহিলা কলেজের নব-নির্মিত ৪তলা ভবনের একাংশে রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের লাইব্রেরী স্থাপন করা হবে। রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষা কার্যক্রম শুরু হওয়ার খবরে শাহজাদপুর সহ সিরাজগঞ্জ জেলাবাসীর মধ্যে আনন্দেও জোয়ার বইতে শুরু করেছে।

উদ্বোধন অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন রেজিষ্ট্রার সোরহাব হোসেন, শাহজাদপুর সরকারি কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ নূরুল ইসলাম, এ.এম আব্দুল আজিজ, শাহজাদপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার শেহেলী লায়লা, উপজেলা চেয়ারম্যান প্রফেসর আজাদ রহমান, ভাইস চেয়ারম্যান মোস্তাক আহমেদ, মিল্কভিটার ভাইস চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামীলীগের সদস্য আব্দুল হামিদ লাভলু, শাহজাদপুর মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ রুহুল আমিন, বঙ্গবন্ধু পরিষদের সভাপতি ডা: ইউনুস আলী খান, শাহজাদপুর প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক শফিকুজামান শফি প্রমুখ।

প্রসঙ্গত, সিরাজগঞ্জ-শাহজাদপুরবাসীর দীর্ঘ আন্দোলনের ফসল হিসেবে ২০১৫ সালের ৮মে রবীন্দ্র জন্মজয়ন্তীর অনুষ্ঠানে রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় বাংলাদেশের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। দেশের ৩৫তম পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় হিসেবে ২০১৬ সালের ২৬ জুলাই রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়, বাংলাদেশ বিলটি সংসদে বিল পাশ হয়। শাহজাদপুর উপজেলার বুড়ি পোতাজিয়া মৌজায় রবীন্দ্রনাথেরই রেখে যাওয়া ১০০ একর খাস জমির উপর এ বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনের স্থান নির্ধারণ করা হয়। ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষে ভর্তি ও পাঠদান কার্যক্রমের মধ্যদিয়ে এলাকাবাসীর দীর্ঘদিনের স্বপ্ন বাস্তবায়ন হবে।

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

fifteen + eight =