কালিহাতীর ঘটনা পরিকল্পিত এবং সংঘবদ্ধ ইন্ধন ?

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

deadbodyটাঙ্গাইলের কালিহাতীর ঘটনায়  জনগণকে উত্তেজিত করে তোলার জন্যে একটি গোষ্ঠীর পরিকল্পিত এবং সংঘবদ্ধ ইন্ধন ছিল এমন তথ্য পেয়েছে পুলিশ। জানালেন পুলিশের  ভারপ্রাপ্ত মহাপরিদর্শক মোখলেসুর রহমান।
আজ রোববার দুপুরে পুলিশ সদর দপ্তরে এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন পুলিশের ভারপ্রাপ্ত মহাপরিদর্শক। পবিত্র ঈদুল আজহাকে সামনে রেখে আইনশৃঙ্খলা নিয়ে এই সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। ইন্ধনের বিষয়টি তদন্তে বেরিয়ে আসবে বলেও জানান ভারপ্রাপ্ত আইজিপি ।
মা-ছেলেকে নির্যাতনের ঘটনার প্রতিবাদে কালিহাতী ও ঘাটাইলের মানুষ গত শুক্রবার কালিহাতী উপজেলা সদরে বিক্ষোভ শুরু করলে পুলিশ গুলি চালায়। এতে তিনজন নিহত হন। আহত হয়েছেন অন্তত ৫০ জন।ওই ঘটনায় গতকাল শনিবার পুলিশের সাত সদস্যকে প্রত্যাহার করা হয়েছে। এ ছাড়া ঘটনা তদন্তে পুলিশ ও প্রশাসনের পক্ষ থেকে দুটি তদন্ত কমিটি করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, ঘটনার পর পর অভিযুক্তদের গ্রেপ্তার করার পরও শুক্রবার কালিহাতি এলাকায় মাইকে স্থানীয় জনগণদের  ডেকে নিয়ে  বিক্ষোভ সমাবেশ করে থানায় হামলা করার চেষ্টা করেছে কিছু লোক।
কালিহাতীর ঘটনা প্রসঙ্গে সাংবাদিকের প্রশ্নের জবাবে মোখলেসুর রহমান বলেন, ঘটনার (মা-ছেলেকে নির্যাতন) পরপরই পুলিশ উদ্যোগ নিয়েছে। কয়েকজন আসামিকে গ্রেপ্তারও করেছে। এর পরও সেখানে সহিংস বিক্ষোভ হয়েছে। বিক্ষোভকারীরা গুরুত্বপূর্ণ মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেছে। এতে হাজারো যাত্রীকে দুর্ভোগ পোহাতে হয়েছে। তারা একপর্যায়ে থানায় হামলা চালানোরও চেষ্টা করেছে। মোখলেসুর রহমান বলেন, আইনশৃঙ্খলা রক্ষার ক্ষেত্রে প্রাণহানির ঘটনা খুবই দুঃখজনক ও অনভিপ্রেত। এ ঘটনায় পুলিশের সাত সদস্যকে প্রত্যাহার করা হয়েছে। তিন সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। ঘটনার পূর্বাপর বিশ্লেষণ করে কমিটিকে সাত দিনের মধ্যে প্রতিবেদন দিতে বলা হয়েছে।
পবিত্র ঈদুল আজহাকে সামনে রেখে সারা দেশে আইনশৃঙ্খলা বজায় রাখতে পুলিশ তৎপর রয়েছে বলে সংবাদ সম্মেলনে জানান মোখলেসুর রহমান। তিনি বলেন, কিছু বিচ্ছিন্ন ঘটনা ঘটেছে। তবে পুলিশের তৎপরতা না থাকলে এ রকম অনেক ঘটনা ঘটত।

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

5 × one =