ক্যানসার আক্রান্ত যুবতীর বিয়ে মৃত্যুশয্যায়

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

২০১৫ সালে হিথারের সঙ্গে প্রথম দেখা হয়েছিল ডেভিডের। প্রথম দর্শনেই প্রেম। বন্ধুরা তাঁদের হরিহর আত্মা বলে রসিকতা করতেন। যেদিন হিথারকে বিয়ের জন্য প্রপোজ করার কথা ডেভিড ভেবেছিলেন, সেদিনই তিনি জানতে পারেন স্তন ক্যানসারে আক্রান্ত তাঁর প্রেমিকা। কিন্তু এ খবরও টলাতে পারেনি ডেভিডকে। প্রপোজ তিনি করেছিলেন প্রেমিকাকে। এও জানতেন যে ক্যানসারের যে স্টেজে হিথার রয়েছেন, বাঁচার কোনও আশাই নেই। তবুও ঠিক করেছিলেন বিয়ের শপথ তিনি হিথারের সঙ্গেই নেবেন। তাঁর শেষের এই সময়টাকে আনন্দে ভরিয়ে দেবেন।

প্রথমে ঠিক করেছিলেন ২০১৭ ডিসেম্বরের ৩০ তারিখ বিয়ে করবেন। কিন্তু হিথারের শারীরিক পরিস্থিতি ক্রমেই খারাপ হচ্ছিল। শেষে কানেক্টিকাটের সেন্ট ফ্রান্সিস হাসপাতালে ২২ ডিসেম্বর বিয়ের আয়োজন করা হয়। সাদা গাউনে হাসপাতালের বেডে শুয়ে ছিলেন হিথার। মৃত্যুশয্যাতেই প্রেমিকার হাতে আংটি পরিয়ে দেন ডেভিড। জীবনের শেষ শব্দ দু’টি উচ্চারণ করেন হিথার। প্রেমিকের দিকে গভীর দৃষ্টিতে তাকিয়ে বলেন ‘I Do’। কিছুক্ষণের মধ্যেই নিথর হয়ে যায় হিথারের শরীর। কিন্তু তাঁর মৃত্যু হয় হিথার মোশের হয়েই। এই পাওনা নিয়েই সারা জীবন কাটিয়ে দিতে চান ডেভিড। দু’জনের এই আবেগমথিত মুহূর্তগুলিই ছড়িয়ে পড়েছে নেটদুনিয়ায়। হয়েছে ভাইরাল।

 

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

4 × 4 =