জনপ্রিয়তার তুঙ্গে বিশ্বমানব পুতিন -সুকান্ত রক্ষিত

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail
Arm wrestling at a youth Club
Arm wrestling at a youth Club
ভয়ংকর বাঘের প্রতিও অমলিন ভালোবাসায় বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিশালী এবং জনপ্রিয় ব্যক্তিত্ব ভ্লাদিমির পুতিন
ভয়ংকর বাঘের প্রতিও অমলিন ভালোবাসায় বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিশালী এবং জনপ্রিয় ব্যক্তিত্ব ভ্লাদিমির পুতিন

পুতিন এখন জনপ্রিয়তার তুঙ্গে (বিদেশের কথা বলছি;দেশে ওর রেটিং বরাবরই ভাল ছিল।)।পুতিনকে আমার প্রথম থেকেই ভাল লাগতো। বিশেষ করে হাজী কাদিরভকে নিয়ে চেচনিয়া সমস্যার অসাধারণ সমাধান করার জন্য। আর ওর কথার মধ্যে একটা ফোর্স আছে, বাচনভঙ্গিটাও সেরকম। এক কথার মানুষ। রাশিয়ানরা বলে “Мужик сказал мужик сделал” (পুরুষ মানুষ – যেহেতু বলেছে, করবেই)।
এনি ওয়ে, সত্যি বলতে কি (আমার দৃষ্টিতে) রাশানরা গত একশ’ বছরেও এমন একটা charismatic লীডার পায় নি। আমার ছাত্রজীবনে দেখলাম দুমদাম তিন উইকেট পড়ে গেল (ব্রেঝনেভ, চেরনেন্কো, আন্দ্রোপভ)। এরপর গর্বাচভ, তারপর মদির ইয়েলৎসিন। (আগেরগুলিকে অবশ্য দেখি নি, তবে বুঝি) ব্রেঝনেভের আগে ক্রুশ্চেভ (যে কিনা জাতিসঙ্ঘে টেবিলে জুতা চাপড়িয়েছিল), তার আগে ইস্পাতদৃঢ় স্টালিন আর তার আগে … মহান লেলিন (নমো নমহ্‍)।
তো বলছিলাম কি, অন্য পুতিনের কথাই বলি – যেটা আমি বেশ উপভোগ করি – সে বেশ সুন্দর আনেকদোত বলে। এবং অত্যন্ত প্রাসঙ্গিক। ওর আনেকদোত নিয়ে না হয় অন্য পোস্ট দিব। আজকে ওর sense of humour ও repartee নিয়ে বলবো।

১/ এক সংবাদ সম্মেলনে এক ইয়াং মেয়ে জার্নালিস্ট (চাইনিজ) আবেগে কিছু বলতেই পারছিল না। সে বললো “আমার বিশ্বাসই হচ্ছে না যে এখন আপনি আমার সামনে … যেন স্বপ্নে!” পুতিন (gesture-সহ): ওকে, পরে আমি তোমাকে একটা চিমটি দিব।

২/ প্রশ্নোত্তর সভায় টেলিফোন করেছে এক বয়স্ক মহিলা। জিজ্ঞেস করলো পুতিনকে ‘আচ্ছা আলাস্কার কি হবে?’ পুতিনের সহাস্য উত্তর ‘ভেরা পেত্রোভনা, আপনি আলাস্কা নিয়ে কি করবেন? ‘
(যারা জানেন না – আলাস্কা রুশ সাম্রাজ্যের অন্তর্ভুক্ত ছিল, পরে জার নামমাত্র দামে আমেরিকাকে বিক্রী করে দেয়। আছে কিছু পাগল যারা আমেরিকার কাছ হতে আলাস্কা ফেরৎ চায়।
আরও: The Deer Hunter ছবি (রবার্ট ডে নিরো, ক্রিস্টোফের ওয়োকেন, মেরিল স্ট্রীপ) যারা দেখেছেন তারা লক্ষ্য করবেন, ওরা আলাস্কার এবং ‘রাশান’)

৩/ পুতিন নিজস্বভাবে সাইবেরিয়ার বাঘের দেখাশোনা করে। একবার পরিদর্শনকালে দেখা গেল একটা বাঘ ঘুমে অচেতন, চেক-আপ হবে। পাশে পুতিন বাঘের গায়ে হাত বুলিয়ে দিচ্ছে। আর পাশে দাঁড়ানো লোকটাকে (সম্ভবতঃ সেইই নিদ্রাউদ্রেককারী সিরিঞ্জ ফায়ার করেছে) পুতিন হেসে বলছে ‘সে (বাঘ) কিন্তু আপনাকে চিনে রেখেছে। তাই ভবিষ্যতে সাবধানে।’

৪/ প্রশ্নোত্তর সভা-
প্রশ্ন: অনেকেই জানতে চাইছে আমরা কখন (নূতন) ফার্স্ট লেডী দেখবো? (পুতিন দম্পতির ডাইভোর্স হয়েছে ২০১৩ সালে)
পুতিন: আগে আমাকে আমার (এক্স ওয়াইফের) লুদমিলা আলেক্সান্দ্রাভনার একটা ব্যবস্থা করতে হবে। তারপর নিজেরটা ভেবে দেখবো।

রাশিয়া প্রবাসী বিশ্লেষক সুকান্ত রক্ষিত
লেখক সুকান্ত রক্ষিত-রাশিয়া প্রবাসী রাজনৈতিক বিশ্লেষক

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

two × 1 =