পরিবেশ দূষণে ঢাকায় ১৮ হাজার মানুষের মৃত্যু: বিশ্বব্যাংক

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

পরিবেশ দূষণের কারণে ২০১৫ সালে ঢাকায় ১৮ হাজার মানুষের মৃত্যু হয়েছে বলে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে বিশ্বব্যাংক। ওয়াশিংটনভিত্তিক ঋণদানকারী সংস্থাটি আজ এই প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে।

এতে বলা হয়েছে, দূষণের কারণে সে বছর শহরটির বাসিন্দাদের জীবন থেকে হারিয়ে গেছে ৫ লাখ ৭৮ হাজার বছরের সমপরিমাণ সময়। সংস্থাটির ২০১৮ সালের দেশভিত্তিক পরিবেশ বিশ্লেষণ প্রতিবেদনে ‘বাংলাদেশের শহরাঞ্চলের পরিচ্ছন্নতা ও স্থিতিশীল উন্নয়নের সুযোগ বৃদ্ধিকরণ’ অংশে বলা হয়েছে, অবিলম্বে এই শহরের পরিবেশকে ঠিক করা প্রয়োজন।

এছাড়া ২০১৫ সালেই পরিবেশ দূষণের কারণে বাংলাদেশের শহরাঞ্চলে মোট ৮০ হাজারের মানুষের মৃত্যু হয়েছে বলেও গবেষণা প্রতিবেদনটিতে উল্লেখ করা হয়েছে।

সর্বশেষ এই গবেষণায় বিশ্বব্যাংক আরও বলেছে বাংলাদেশের শহরাঞ্চলে বায়ু দূষণ, সুপেয় পানির অপর্যাপ্ততা, স্যানিটেশন, স্বাস্থ্যবিধি, খাবার পানিতে আর্সেনিক ও পেশাগত কারণে সৃষ্ট দূষণে মানুষের জীবন থেকে ২০ লাখ ২৬ হাজার বছর সমপরিমাণ সময় হারিয়ে গেছে।

প্রতিবেদন বলছে, শ্রম উৎপাদনের পরিপ্রেক্ষিতে বাংলাদেশের শহুরে এলাকার এই মৃত্যুহারের ক্ষতির পরিমাণ ১ দশমিক ৪০ বিলিয়ন ডলার। যা ২০১৫ সালের বাংলাদেশের মোট দেশজ উৎপাদনের (জিডিপি) ০.৭ শতাংশের সমান। সেই হিসাবে রাজধানী ঢাকাতেই ক্ষতি হয়েছে ৩১ কোটি ডলার, যা ২০১৫ সালের জিডিপির ০.২ শতাংশের সমান।

বিশ্বব্যাংক বলছে, নগরায়ণ ও শিল্প প্রবৃদ্ধির সঙ্গে বাংলাদেশকে এর জন্য পরিবেশগত মূল্য দিতে হচ্ছে যা শক্তিশালী অর্থনৈতিক অগ্রগতির সম্ভাবনাকে ক্রমাগত ক্ষতিগ্রস্ত করছে।

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

two × 1 =